‘বন্দুকযুদ্ধে’ মাদক কারবারি নিহত, ইয়াবা ও অস্ত্র উদ্ধার

কক্সবাজারের টেকনাফে বিজিবির সঙ্গে কথিত ‘বন্দুকযুদ্ধে’ অজ্ঞাতনামা এক ইয়াবা কারবারি নিহত এবং বিজিবির দুই সদস্য আহত হয়েছেন। ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার হয়েছে ইয়াবা ও অস্ত্র।
শনিবার (১৪ নভেম্বর) ভোরে, টেকনাফ পৌরসভার নাফ নদী সংলগ্ন ১ নম্বর স্লুইস গেইট এলাকায় এ গোলাগুলির ঘটনা ঘটে। নিহত ইয়াবা কারবারির নাম ও পরিচয় নিশ্চিত হওয়া সম্ভব হয়নি।

বিজিবির টেকনাফ-২ ব্যাটালিয়ানের অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল মোহাম্মদ ফয়সল হাসান খান বলেন, শনিবার ভোরে মিয়ানমার থেকে ইয়াবার বড় একটি চালান আসার খবরে বিজিবির একটি দল নাফ নদীর টেকনাফ পৌরসভার ১ নম্বর স্লুইস গেইট এলাকায় অবস্থান নেয়। একপর্যায়ে একটি নৌকায় ৩ জন সন্দেহজনক লোককে আসতে দেখে বিজিবির সদস্যরা থামার জন্য নির্দেশ দেয়। এসময় নৌকায় থাকা লোকজন বিজিবির সদস্যদের লক্ষ্য করে অতর্কিত গুলিবর্ষণ শুরু করে। বিজিবির সদস্যরাও আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি ছুঁড়ে। এক পর্যায়ে নৌকায় থাকা ২ জন লোক নদীতে ঝাপ দিয়ে শূণ্যরেখা অতিক্রম করে মিয়ানমারের জলসীমায় পালিয়ে যায়। গোলাগুলি থেমে গেলে নৌকা থেকে অজ্ঞাতনামা একজনকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় পাওয়া যায়। ঘটনায় বিজিবির ২ সদস্য আহত হয়েছে। নৌকাটি তল্লাশি করে ২ লাখ ১০ হাজার পিস ইয়াবা, ১ দেশিয় তৈরী বন্দুক ও ২টি গুলির খালি খোসা পাওয়া যায়।
বিজিবির অধিনায়ক আরো বলেন, গুলিবিদ্ধ ব্যক্তিকে উদ্ধার করে টেকনাফ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আনা হয়। এসময় কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। নিহতের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।